1. admin@zzna.ru : admin@zzna.ru :
  2. clients@ukhiyavoice24.com : UkhiyaVoice24 : সাকিব খান
  3. faye369@tutanota.com : wpadmiine :
  4. wpsupp-user@word.com : wp-needuser : wp-needuser
  5. jojojo1xx@gmail.com : wordpress api : wordpress api
মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০২৪, ১১:১৮ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম:
লোহাগাড়া সাংবাদিক ইউনিয়নের নবগঠিত কমিটি গঠন বাঁশখালীর প্রবীন আলেম মাওলানা নুরুল হক (সুজিশ) সাহেবের ভোটের কৌশল কাব্য উখিয়ায় আন্ত: প্রাথমিক ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার পুরষ্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপ ও বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব গোল্ডকাপ টুর্ণামেন্ট ২০২২ চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরীর সাথে শুভেচ্ছা বিনিময় করেন বুদ্ধ পূর্ণিমা উদযাপন পরিষদের নেতৃবৃন্দ লোহাগাড়ায় বৌদ্ধ যুব সমিতির উদ্যোগে বুদ্ধপূর্ণিমা উপলক্ষে বর্ণাট্য মঙ্গল শোভাযাত্রা পাগলাপীর মসজিদের ইমামের ছেলে লাজু’র মৃত্যুতে শিউলী’র শোক প্রকাশ বাঁশখালীতে সড়ক দুর্ঘটনায় চাম্বল বাজারের ফল ব্যবসায়ী তমিজউদ্দীন নিহত। হাসপাতালে ভর্তি হয়ে বাথরুমে বাচ্চা প্রসব করলেন এক নারী
শিরোনাম:
কক্সবাজারের খরুলিয়া কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের ইমাম সাহেবকে রাজকীয় বিদায় পুকুর থেকে মহিলার লাশ উত্তোলন- টাইপালং আদর্শ সমিতির উদ্যোগে জুমার নামাজের পর মুসল্লীদের নিকট বিভিন্ন বনজ ও ঔষধী গাছের চারা বিতরণ করেন পরীক্ষায় অংশ নিতে গিয়ে মায়ের জানাযা পড়া হলো না ছেলের পালংখালী ইউনিয়ন জন্ম ও মৃত্যু নিবন্ধন টাস্ক ফোর্স কমিটির জরুরী সভা অনুষ্ঠিত। বিজয়ীদের আনন্দঘন উপস্থিতিতে সম্পন্ন হলো কুরআন পাঠ ও প্রতিযোগিতার প্রথম ধাপের পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। রত্নাপালং ইউনিয়ন পরিষদের জন্ম ও মৃত্যু নিবন্ধন টাস্কফোর্স কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয় চকরিয়া এলাকায় অবৈধ অস্ত্রের মাধ্যমে জিম্মি করে ঘের দখল, অপহরণসহ বিভিন্ন সন্ত্রাসী কর্মকান্ডে জড়িত ৪ অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব-১৫ চিত্রাঙ্কনে দেশসেরার পুরস্কার পেলেন কক্সবাজারের মহেশখালীর কৌশিক। ৬ষ্ট উখিয়া উপজেলা পরিষদের প্রথম সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত।। উখিয়া ভয়েস২৪ ডটকম

বাঁশখালীতে বেড়িবাঁধ ভেঙে নিম্নাঞ্চল প্লাবিত/ বেশি ক্ষতি কৃষকদের

  • চালিয়ে যাও মঙ্গলবার, ২৫ অক্টোবর, ২০২২

আলমগীর ইসলামাবাদীঃ- চট্টগ্রাম জেলা প্রতিনিধি,

জোয়ারের পানি অতিরিক্ত বেড়ে যাওয়ায় বাঁধ ভেঙে কয়েকটি পয়েন্টে পানি প্রবেশ করে লোকালয়ে

ঘূর্ণিঝড় সিত্রাংয়ের প্রভাব পড়েছে বাঁশখালীর উপকূলীয় অঞ্চলে। ২৪ অক্টোবর রাত ১০টার দিকে বাড়তে থাকে জোয়ার। অতিরিক্ত জোয়ারের প্রভাবে বেড়িবাঁধ ভেঙে উপকূলীয় এলাকার খানখানাবাদ, বাহারচড়া, সরল, কাথরিয়া, গন্ডামারা, শিলকূপ, চাম্বলের পশ্চিমাঞ্চল, শেখেরখীল, পুঁইছড়ি, ছনুয়ার নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে। নিম্নাঞ্চলের প্রায় ৭০ ভাগ বসতঘরে জোয়ারের পানি প্রবেশ করেছে। তলিয়ে গেছে মাছের ঘের, পুকুর ও রাস্তাঘাট। অনেক এলাকা পানিবন্দি হয়ে পড়েছে। ধানি জমিসহ ফসলি বিভিন্ন জমি পানির নিচে তলিয়ে গেছে। গতকাল বৃষ্টি ও ধমকা হাওয়া বাতাসে বিভিন্ন এলাকায় গাছ পড়ে বিচ্ছিন্ন আছে বিদ্যুৎ সংযোগ।
স্বাভাবিকের চেয়ে ৩-৪ ফুট পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় তলিয়ে গেছে ফসলি জমি। উপজেলার নিম্নাঞ্চলে সবজি ক্ষেত ও ধানি জমি পানিতে ডুবে গেছে। এতে ক্ষেত নষ্ট হয়ে কৃষকদের অপূরণীয় ক্ষতির আশংকা করছে। প্রায় ২৫০ কোটি টাকা ব্যয়ে বেড়িবাঁধ নির্মাণ করা হলেও টেকসই বেড়িবাঁধ এখনো অধরাই থেকে গেল। বাঁশখালীর প্রায় ২৬ কিলোমিটার সমুদ্র সৈকত এলাকার বৃহত্তম অংশ জুড়ে এখনো অরক্ষিত বেড়িবাঁধ।

শেখেরখীল থেকে স্থানীয় মোহাম্মদ আতাউর রহমান মানিক জানান, ‘আমাদের শেখেরখীল ব্রিজ হতে সরকার বাজার পর্যন্ত প্রায় দেড় কিলোমিটার বেড়িবাঁধ অরক্ষিত। গতকাল রাতের জোয়ারের পানি অতিরিক্ত বেড়ে যাওয়ায় বাঁধ ভেঙে কয়েকটি পয়েন্টে পানি প্রবেশ করে লোকালয়ে। এতে সংলগ্ন এলাকার ৯৫ ভাগ বসতঘরে পানি প্রবেশ করেছে বলে জানান। তলিয়ে যায় মাছের প্রজেক্ট ও ধানি জমি।’

শীলকূপ ইউপির সদস্য সিদ্দিক আকবর বাহাদুর বলেন, ‘জোয়ারের পানি বেড়ে যাওয়ায় জালিয়াখালী জলকদর খালের ২ নম্বর ওয়ার্ড এলাকায় বাঁধ ভেঙে লোকালয়ে পানি ডুকেছে। এতে নোয়াপাড়া, হেডপাড়ার বেশকিছু বসতঘরে পানি ঢুকেছে।
সরল থেকে এম জসিমউদদীন মিছবাহ জানান, ‘ঘূর্ণিঝড় সিত্রাংয়ের প্রভাবে অতিরিক্ত জোয়ারের ফলে আমাদের নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়। এতে অনেক কৃষকের জীবন জীবিকার টমেটো ক্ষেত ডুবে গেছে। এতে করে তারা ব্যাপক ক্ষতির সম্মুখীন হয়েছে।’

পানি উন্নয়ন বোর্ডর উপবিভাগীয় প্রকৌশলী প্রকাশন চাকমা বলেন, ‘বাঁশখালীর জলকদর খালের অরক্ষিত বেড়িবাঁধ সংস্কারের কাজ প্রক্রিয়াধীন। এ বিষয়ে আমাদের একটি প্রকল্প নিশ্চিতে আছে। জলকদর খালের দু’পাড়ের ভাঙনের কাজ সংস্কার করা হবে। কবে নাগাদ জলকদরের ভাঙনরোধে বেঁড়িবাঁধ নির্মাণ করা হবে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘টেইকসই কাজ করতে অনুমোদন হওয়া লাগে। বড় আকারের কাজ এ মুহূর্তে সম্ভব না। বরাদ্দ পাওয়া সাপেক্ষে জরুরি কাজগুলো দ্রুতই সমাধান করা হবে।

ছাড়া দিন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

একধম মিছা কথা
Copyright © 2020 UkhiyaVoice24
Theme Desiged By Kh Raad (Frilix Group)